Breaking News
Home / ভিডিও / এই ভিডিওর জন্যই ভেঙে গিয়েছিল তাহসান-মিথিলার সংসার

এই ভিডিওর জন্যই ভেঙে গিয়েছিল তাহসান-মিথিলার সংসার

এই ভিডিওর জন্যই ভেঙে গিয়েছিল তাহসান-মিথিলার সংসার
ভিডিও দেখতে পোস্টের নিছে চলে যান।

জনপ্রিয় তারকা জুটি তাহসান-মিথিলার বিবাহ বিচ্ছেদ এখন টক অব দ্য টাউন। বৃহস্পতিবার তাদের দেওয়া যৌথ বিবৃতির পর প্রশ্ন ওঠেছে— কেন এ বিচ্ছেদ? এর পেছনে কারণ হিসেবে মিথিলা পারস্পরিক বোঝাপড়া কমে যাওয়া ও দুজনের ক্যারিয়ার পরিকল্পনা আলাদা হওয়াকে দায়ী করেছেন।

তবে মিথিলার পরিবারের একটি ঘনিষ্ঠ সূত্র থেকে কিছু তথ্য বেরিয়ে এসেছে পরিবর্তন ডটকমের কাছে।

জানা গেছে, মূল ঘটনার সূত্রপাত বছর দুয়েক আগে। ঝগড়ার এক পর্যায়ে মিথিলার গায়ে হাত তুলেন তাহসান। ঝগড়া শুরু হয়েছিল নারী ভক্তদের সাথে তাহসানের মেলামেশা নিয়ে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সূত্রটির দাবি, তাহসান কোন নারী ভক্তের সাথে প্রেম বা অন্য কোন সম্পর্কে না জড়ালেও কেউ দেখা করতে চাইলে একা গিয়ে দেখা করতেন, তাদের সাথে ঘুরতে যেতেন। এমনকি বিভিন্ন সময়ে নাটকের সেট থেকে নায়িকাদের নিয়ে লং ড্রাইভে যেতেন। এ নিয়ে মিথিলা আপত্তি তুললেও তাহসান পাত্তা দেননি। একটা সময় তা তাদের নিয়মিত ঝগড়ার বিষয়ে পরিণত হয়

সর্বশেষ দুবছর আগে গায়ে হাত তোলার পর থেকে মিথিলা ও তাহসান আলাদা থাকতে শুরু করেন। এ দুবছরে সম্পর্কের তিক্ততা কমাতে দুজন বহুবার চেষ্টা করেছেন। দুই পরিবারের পক্ষ থেকে অসংখ্য মিটিং হয়েছে। কিন্তু সম্পর্ক আর জোড়া লাগেনি।

তবে এ প্রসঙ্গে মিথিলা বলেন, ‘আমাদের বিবাহিত জীবন দীর্ঘ ১১ বছরের। ১৪ বছর ধরে একজন আরেকজনকে চিনি। বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত আসলে হঠাৎ করে নিইনি। আমাদের বোঝাপড়ায় অনেক দিন ধরে সমস্যা হচ্ছিল। ব্যক্তিত্বের দ্বন্দ্বও প্রকট ছিল। জীবন নিয়ে শুরুতে এক ধরনের পরিকল্পনা ছিল, সময়ের সঙ্গে তা বদলে গেছে। তারপরও এত বছরের সম্পর্ক তো আর এত সহজে কেউ ভেঙে ফেলতে চায় না। আমরা আমাদের সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছি। কারণ, আমাদের একটি সন্তান আছে। দুই বছর ধরে আলাদা থাকলেও সন্তান আর সংসারের কথা ভেবে আমরা একসঙ্গে কাজ করে ভালো থাকার চেষ্টা করেছি। শেষ পর্যন্ত আমরা বুঝতে পেরেছি, সম্পর্কটা আর টিকবে না।’

দুবছর আলাদা থাকলেও দুজনে বেশকিছু নাটকে একসাথে অভিনয় করেছেন। তা মূলত পেশাদারিত্বের কারণে। এ সময় তাদের সম্পর্কে অবনতির বিষয়টি টের পেয়েছিলেন বলে জানালেন নির্মাতা মিজানুর রহমান আরিয়ান। তিনি বলেন, ‘আমরা যে বিষয়টি আগে থেকে টের পাইনি তা না। কিন্তু ভেবেছিলাম হয়ত তারা দুজন আবার এক হয়ে যাবেন।’

বৃহস্পতিবার দুপুরে নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে তাহসান ঘর ভাঙার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। মিথিলার সঙ্গে যৌথ বিবৃতিতে বলেন, ‘বেশ কয়েকমাস ধরে নিজেদের মধ্যকার দ্বন্দ্ব নিরসনের চেষ্টার পর আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি, সামাজিক চাপে একটা সম্পর্ক ধরে রাখার চেয়ে আমাদের আলাদা হয়ে যাওয়াই মঙ্গলজনক।’

তারা আরো বলেন, ‘আমরা বুঝতে পারছি যে, এটা আপনাদের খুব খারাপ লাগবে। সেজন্য আমরা আন্তরিকভাবে দুঃখ প্রকাশ করছি। আমরা সবসময় নিজেদের সম্পর্ক সম্মান ও মর্যাদার সঙ্গে বজায় রেখেছিলাম, ভবিষ্যতেও তাই থাকবে। আমরা আশা করি, আপনারা আমাদের পাশে থাকবেন।’

আরো জানান, একসঙ্গে সন্তানের দেখাশোনা করবেন তারা। এ পরিস্থিতিতে সবার সহযোগিতা চেয়েছেন তাহসান-মিথিলা।

২০০৪ সালে তাহসান-মিথিলার প্রেম হয়। ২০০৬ সালের ৩ আগস্ট তারা বিয়ে করেন। তাদের রয়েছে কন্যা সন্তান আয়রা তাহরিম খান।

ভিডিও টি একদম নিচে

সর্বশেষ দুবছর আগে গায়ে হাত তোলার পর থেকে মিথিলা ও তাহসান আলাদা থাকতে শুরু করেন। এ দুবছরে সম্পর্কের তিক্ততা কমাতে দুজন বহুবার চেষ্টা করেছেন। দুই পরিবারের পক্ষ থেকে অসংখ্য মিটিং হয়েছে। কিন্তু সম্পর্ক আর জোড়া লাগেনি।

তবে এ প্রসঙ্গে মিথিলা বলেন, ‘আমাদের বিবাহিত জীবন দীর্ঘ ১১ বছরের। ১৪ বছর ধরে একজন আরেকজনকে চিনি। বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত আসলে হঠাৎ করে নিইনি। আমাদের বোঝাপড়ায় অনেক দিন ধরে সমস্যা হচ্ছিল। ব্যক্তিত্বের দ্বন্দ্বও প্রকট ছিল। জীবন নিয়ে শুরুতে এক ধরনের পরিকল্পনা ছিল, সময়ের সঙ্গে তা বদলে গেছে। তারপরও এত বছরের সম্পর্ক তো আর এত সহজে কেউ ভেঙে ফেলতে চায় না। আমরা আমাদের সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছি। কারণ, আমাদের একটি সন্তান আছে। দুই বছর ধরে আলাদা থাকলেও সন্তান আর সংসারের কথা ভেবে আমরা একসঙ্গে কাজ করে ভালো থাকার চেষ্টা করেছি। শেষ পর্যন্ত আমরা বুঝতে পেরেছি, সম্পর্কটা আর টিকবে না।’

দুবছর আলাদা থাকলেও দুজনে বেশকিছু নাটকে একসাথে অভিনয় করেছেন। তা মূলত পেশাদারিত্বের কারণে। এ সময় তাদের সম্পর্কে অবনতির বিষয়টি টের পেয়েছিলেন বলে জানালেন নির্মাতা মিজানুর রহমান আরিয়ান। তিনি বলেন, ‘আমরা যে বিষয়টি আগে থেকে টের পাইনি তা না। কিন্তু ভেবেছিলাম হয়ত তারা দুজন আবার এক হয়ে যাবেন।’

বৃহস্পতিবার দুপুরে নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে তাহসান ঘর ভাঙার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। মিথিলার সঙ্গে যৌথ বিবৃতিতে বলেন, ‘বেশ কয়েকমাস ধরে নিজেদের মধ্যকার দ্বন্দ্ব নিরসনের চেষ্টার পর আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি, সামাজিক চাপে একটা সম্পর্ক ধরে রাখার চেয়ে আমাদের আলাদা হয়ে যাওয়াই মঙ্গলজনক।’

তারা আরো বলেন, ‘আমরা বুঝতে পারছি যে, এটা আপনাদের খুব খারাপ লাগবে। সেজন্য আমরা আন্তরিকভাবে দুঃখ প্রকাশ করছি। আমরা সবসময় নিজেদের সম্পর্ক সম্মান ও মর্যাদার সঙ্গে বজায় রেখেছিলাম, ভবিষ্যতেও তাই থাকবে। আমরা আশা করি, আপনারা আমাদের পাশে থাকবেন।’

আরো জানান, একসঙ্গে সন্তানের দেখাশোনা করবেন তারা। এ পরিস্থিতিতে সবার সহযোগিতা চেয়েছেন তাহসান-মিথিলা।

২০০৪ সালে তাহসান-মিথিলার প্রেম হয়। ২০০৬ সালের ৩ আগস্ট তারা বিয়ে করেন। তাদের রয়েছে কন্যা সন্তান আয়রা তাহরিম খান।

About Admin Rafi

Leave a Reply