Breaking News
Home / ভিডিও / ভিডিওটি দেখলে আপনি জীবনে প্লাস্টিকের বোতলে পানি খাবেন না। খেলেই মহাবিপদ

ভিডিওটি দেখলে আপনি জীবনে প্লাস্টিকের বোতলে পানি খাবেন না। খেলেই মহাবিপদ

ভিডিওটি দেখলে আপনি জীবনে প্লাস্টিকের বোতলে পানি খাবেন না। খেলেই মহাবিপদঃ বর্তমান সময়ে বাজারে যত মিনারেল ওয়াটার পাওয়া যায় তার বেশিরভাগই প্লাস্টিকের বোতলে করে বাজার জাত করা হয়। প্লাস্টিকের বোতল হালকা এবং সহজে বহনযোগ্য

বলে এর জনপ্রিয়তা প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। তবে আপনি কি জানের এই প্লাস্টিকের বোতলের কারনে কত মারাত্মক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন আপনি। বেশিরভাগ মানুষই জানে না। ভিডিওটি দেখুন আমি মনে করি ভিডিওটি দেখার পর আপনি আর প্লাস্টিকের বোতলে পানি খাবেন না।

ভিডিওটি পোষ্টের নিচে দেয়া আছে। ভিডিওটি দেখতে স্ক্রল করে পোষ্টের নিচে চলে যান।

আরো পড়ুনঃ

সেই রাজ প্রাসাদের মালিক টুটুল ঋণখেলাপি মামলায় গ্রেফতার

এক একর জমিতে ১০ বছর ধরে প্রায় ৫০০ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত রাজ প্রাসাদ নির্মাণ করেন ব্যবসায়ী সাখাওয়াত হোসেন টুটুল। বগুড়ার মোকামতলার দেউলি সরকারপাড়ায় তার এ বাড়ি। সম্প্রতি একটি ব্যাংকের ঋণখেলাপির মামলায় গ্রেফতার হওয়ায় তিনি আলোচনায় এসেছেন।

ঢাকার মতিঝিল থানার ওই মামলায় গ্রেফতার হওয়ার পর তাকে কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়েছে।সোমবার বিকালে মামলার বাদী ও তদন্তকারী কর্মকর্তা দুদক বগুড়া সমন্বিত কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক আমিনুল ইসলাম ও স্থানীয়রা জানান, ব্যবসায়ী সাখাওয়াত হোসেন টুটুল বগুড়ার মোকামতলা বন্দরের কাছে দেউলি সরকারপাড়ায় দেশি-বিদেশি মূল্যবান পাথর দিয়ে প্রাসাদ আদলে বাড়ি নির্মাণ করেছেন।

এলাকার লোকজন এটিকে টুটুলের বাড়ি বলে জানেন। ২০০৬ সাল থেকে ১০ বছর সময়ে এক একর জমিতে প্রাসাদটি নির্মাণ করতে প্রায় ৫০০ কোটি টাকা ব্যয় হয়েছে।টুটুলের ঢাকার ধানমন্ডিতে অক্সফোর্ড ইন্টারন্যাশনাল স্কুল, গাজীপুরে টাটকা ফুড প্রোডাকশন ফ্যাক্টরি, এএইচজেড কোল্ড স্টোরেজ, ইটভাটা এবং এএইচজেড ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনসহ কিছু ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছে।

তিনি রূপালী ব্যাংক ঢাকার দিলকুশা শাখা থেকে ৯৩ কোটি টাকা ঋণ নেন। এ ঋণের টাকা কোনো কাজে ব্যয় বা ব্যাংকে পরিশোধও করেননি।ঋণখেলাপির ঘটনায় দুদকের সহকারী পরিচালক আমিনুল ইসলাম তার বিরুদ্ধে মতিঝিল থানায় মামলা করেন। সম্প্রতি তাকে ঢাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

About Admin Rafi

Leave a Reply