Breaking News
Home / আন্তর্জাতিক / মালয়েশিয়ায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত।

মালয়েশিয়ায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত।

রফিকুল ইসলাম, মালয়েশিয়া:- মালয়েশিয়া কুয়ালালামপুরে বাংলাদেশ হাইকমিশন কর্তৃক আজ দিনের প্রথম প্রহর থেকে যথাযোগ্য মর্যাদার সহিত পালিত হয়েছে ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলনের স্মারক দিন একুশে ফেব্রুয়ারি। মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস। অনুষ্ঠানের শুরুতে জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও অর্ধনমিতকরণ করেন রাষ্ট্রদূত মহ. শহীদুল ইসলাম।অতঃপর ভাষা শহীদদের স্মরণে নিরবতা পালন এবং দেশ ও জাতির সমৃদ্ধি ও শান্তি কামনা করে বিশেষ দোয়া করা হয়। হাইক্মিশন চত্ত্বরে নির্মিত অস্থায়ী শহীদ মিনারে বাংলাদেশ হাইকমিশন এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও প্রবাসী সংগঠন পুষ্পাঞ্জলি অর্পন করে। উক্ত অনুষ্ঠানে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি জনাব মোঃ আব্দুল হামিদ এর বাণী পাঠ করেন বাংলাদেশ হাইকমিশনের ডিফেন্স এডভাইজার কমোডর মুসতাক আহমেদ, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, এমপি মহোদয়ের বাণী পাঠ করেন ডেপুটি হাইকমিশনার ও দূতালয় প্রধান জনাবা ওয়াহিদা আহমেদ। মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন এমপি মহোদয়ের বাণী পাঠ করেন কাউন্সিলর (শ্রম) জনাব মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম। মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী জনাব মোঃ শাহরিয়ার আলম এমপি মহোদয়ের বাণী পাঠ করেন জনাব মোঃ মশিউর রহমান তালুকদার, কাউন্সেলর (পাসপোর্ট এন্ড ভিসা) এবং সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জনাব কে এম খালিদ এমপি’র বাণী পাঠ করেন জনাব মোঃ রাজিবুল আহসান, কাউন্সিলর (কমার্সিয়াল) । অনুষ্ঠানে মান্যবর হাইকমিশনার বলেন, মাতৃভাষা প্রতিষ্ঠার জন্য সংগ্রাম ও জীবন দেওয়ার ইতিহাস একমাত্র গর্বিত বাঙ্গালি জাতিরই আছে। এই ভাষা সংগ্রামের অর্জনেই লুকিয়ে ছিল বাংলাদেশের স্বাধীনতা যা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে বাঙ্গালি অর্জন করে। বর্তমান মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাদের ভাষা সংগ্রামের রক্তাক্ত অধ্যায় একুশে ফেব্রুয়ারিকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। বর্তমানে তাঁরই নেতৃত্বে ইতিহাস আর ঐতিহ্যকে সমুন্নত রেখে বাংলাদেশের উন্নয়নের অগ্রগতি আজ দৃশ্যমান। তিনি দেশের উন্নয়নে প্রবাসীদের অবদানের কথা কৃতজ্ঞতার সাথে স্মরণ করেন। অনুষ্ঠানে হাইকমিশনের কর্মকর্তা ও কর্মচারিদের পরিবার ছাড়াও মালয়েশিয়াস্থ প্রবাসী বাংলাদেশের নাগরিক ও বিভিন্ন সংগঠন অংশগ্রহণ করেন।এছাড়াও আরো উপস্থিত ছিলেন কামরুজ্জামান কামাল, রেজাউল করিম রেজা, অহিদুর রহমান অহিদ, রাশেদ বাদল, এম এ কামাল হোসেন চৌধুরী, এ আর মোহাম্মদ মামুন, মনিরুজ্জামান মনির, রাসেল মোল্লা, অনিক আমিন, ফারুক মিয়া, যাইদ সরকার, মোহাম্মদ ওয়াশিম মিয়া, মফিজুল ইসলাম আরজু, মো মতিউর রহমান, মো. ছাচু মিয়া, আলমগীর হোসেন, হাবিবুর রহমান সহ অনেকেই।

About Saimur Rahman

Leave a Reply